প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী’র বাংলা উচ্চারণ নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় প্রায়শই কটাক্ষ করেন। শুধু তিনিই নন, অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় থেকে তৃণমূলের সর্বস্তরের নেতা-নেত্রীরা এখন নিয়মিত মোদীর বাংলা উচ্চারণ নিয়ে ব্যাঙ্গ বিদ্রুপ করেন।

এবার নিজের বাংলা উচ্চারণ নিয়ে এই কটাক্ষর জবাব দিলেন স্বয়ং নরেন্দ্র মোদী। মঙ্গলবার হাওড়ার ডুমুরজলা’র নির্বাচনী জনসভা থেকে মোদী বলেন, পরাজয়ের হতাশায় দিদি আমাকে গালি দেন। বাংলার মানুষ দিদি’র এই আচরণ দেখে দুঃখ পাচ্ছেন। দেশ-বিদেশে এর নিন্দা হচ্ছে। বাংলার এ কোন ছবি তুলে ধরছেন দিদি? আমার বাংলা উচ্চারণ নিয়েও প্রশ্ন তুলছেন দিদি। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে সাংসদ, মুখ্যমন্ত্রীদের জন্মদিনে আমার দফতর থেকে সকলকে চিঠি পাঠাই, শুভেচ্ছা জানাই। আগে ইংরেজিতে চিঠি যেতো। আমি আসার পর সকলকে তাঁদের মাতৃভাষায় চিঠি লিখে পাঠাই। তার অর্থ এই নয় যে আমি সব ভাষা জানি। বরং সব ভাষার প্রতি সম্মান থেকেই করি। আমি একবার দিদিকে বাংলায় লিখেছিলাম, দিদি গুজরাতিতে জবাব দিয়েছিলেন। তখন খুব ভাল লেগেছিল আমার। কারণ, এত ভাষাভাষির দেশ বিশ্বের আর কোথাও নেই। যেখানেই যাই সেখানকার ভাষা বলার চেষ্টা করি। উচ্চারণে ভুল হয়। কিন্তু সম্মানের সঙ্গেই চেষ্টা করি। হিন্দিতে বলার সময়ও অনেক ভুল করি। বাংলা উচ্চারণেও সমস্যা রয়েছে জানি। তাও বলি। কারণ, বাংলাকে সম্মান করি। এটাকে তো উৎসাহ দেওয়া উচিত।